কন্যার ছবিতে বাজে মন্তব্য, যা বললেন সাকিবের স্ত্রী

0 ৮৫

শিশুকন্যা আলাইনার ছবি দেয়ার পর যারা বাজে বা আপত্তিকর মন্তব্য করেছেন, পাবলিক ফিগার হিসাবে সেসব মন্তব্য পাত্তা দেয় না বাংলাদেশী ক্রিকেটার সাকিব আল হাসানের পরিবার। বরং এ ব্যাপারটিকে বড় করে আলোচনায় নিয়ে আসাটা পছন্দ হয়নি তাদের।

এ ব্যাপারে নিজের প্রতিক্রিয়া জানিয়ে সাকিব আল হাসানের স্ত্রী, উম্মে আহমেদ শিশির নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পাতায় একটি স্ট্যাটাস লিখেছেন।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে সূর্যমুখী ফুলের এক বাগানে পরিবার নিয়ে ঘুরতে গিয়েছিলেন বাংলাদেশের ক্রিকেট তারকা সাকিব আল হাসান।

সেখানে তার শিশুকন্যার কয়েকটি ছবি তুলে নিজের ভেরিফায়েড ইন্সটাগ্রাম অ্যাকাউন্টে তিনি আপলোড করেন।

মুহূর্তেই ওই ছবির নিচে অসংখ্য কমেন্ট পড়তে থাকে। এর মধ্যে কয়েকটি মন্তব্য ছিল বেশ খারাপ ইঙ্গিতপূর্ণ।

এই কমেন্টগুলোর স্ক্রিনশট শিশুটির ওই ছবির ওপর বসানো একটি পোস্ট ফেসবুকে দ্রুত ভাইরাল হয়ে যায়। ঢাকার সাইবার ক্রাইম বিভাগের পুলিশ জানিয়েছে, তারা কুরুচিপূর্ণ মন্তব্যকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে।

তবে পুরো ঘটনাটি নিয়ে বিরক্তি প্রকাশ করেছেন উম্মে আহমেদ সাকিব।

নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পাতায় ইংরেজিতে লেখা একটি স্ট্যাটাস উম্মে আহমেদ সাকিব লিখেছেন, ‘এই ব্যাপারটা নিয়ে কী ঘটছে, সে সম্পর্কে আমার কোনো ধারণাই ছিল না। এটা আসলে আমাদের জন্য কোনো ব্যাপার না। কারণ পাবলিক ফিগার হিসাবে আমাদের অনেক ভক্ত আর অনুসারী রয়েছে, সেখানে অবশ্যই শুভাকাঙ্ক্ষীদের পাশাপাশি সমালোচনাকারীও রয়েছে। আমরা সবসময়েই মনোযোগের কেন্দ্রে থাকি, সেটা অবশ্যই ভালো দিক।’

বিষয়টি নিয়ে সামাজিক মাধ্যমে আলোচনা-সমালোচনায় বিরক্তি প্রকাশ করে তিনি লিখেছেন, ‘বিশ্বের অনেক দেশের তারকারা এ ধরণের মন্তব্যের শিকার হন, কিন্তু প্রতিবাদ করার নামে সেখানে মোবাইল ঘেঁটে হাজার হাজার ভালো মন্তব্যের ভেতর থেকে ৪/৫টা খারাপ মন্তব্য খুঁজে বের করার সময় কারো নেই।’

‘হাজার হাজার ভালো মন্তব্যের ভেতর থেকে মাত্র ৪/৫টি খারাপ মন্তব্য নিয়ে পুরো ব্যাপারটা ঘটছে।’

উম্মে আহমেদ শিশির বরং এই ঘটনার জন্য কয়েকটা ফেসবুক পাতার অ্যাডমিনদের দায়ী করেছেন।

তিনি লিখেছেন, ‘আমি এসব মন্তব্যকারীদের কিছু বলবো না, কারণ ওদের নিয়ে আমি বিরক্ত নই। কিন্তু আমি বিরক্ত কিছু ফেসবুক পাতার অ্যাডমিনদের ওপর, যারা ওই চারটি মন্তব্য খুঁজে বের করে, যেটা কোনো ঘটনাই নয়, সেটাকে বড় বানিয়েছেন।’

‘উচ্চ পর্যায়ে এটি নিয়ে তদন্ত হচ্ছে।’

তিনি ফেসবুক পাতার অ্যাডমিনদের উদ্দেশ্যে লিখেছেন, ‘এই সুযোগে আপনারা আপনাদের পাতার প্রচার কামিয়ে নিন। কিন্তু এসব আমাদের উদ্দেশ্য অথবা জীবনযাপনে কোনো পরিবর্তন আনবে না। কারণ এসব তুচ্ছ ব্যাপারে আমরা কোনো গুরুত্ব দেই না।’

স্ট্যাটাসের শেষে তিনি লিখেছেন, ‘আমার ছবির নিচে মন্তব্য দেখার জন্য আপনার বসার দরকার নেই, সেটা সময়ের অপচয়।’

2 1 vote
Article Rating
আরও পড়ুন
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x