মাদারীপুরে ডাকাতির ঘটনায় পুলিশের চেষ্টায় তিন ডাকাত আটক

0 ১২৮

ডাকাতির ঘটনায় সংঘবদ্ধ তিন ডাকাতকে আটক করে বৃহস্পতিবার দুপুরে আদালতে প্রেরণ করেছে মাদারীপুর সদর থানা পুলিশ। মাদারীপুর সদর উপজেলার কুনিয়ান ইউনিয়নের ভরুয়াপাড়া গ্রামের এক রংমিস্ত্রীর বাড়িতে বুধবার রাতে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। পরে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বদরুল আলম মোল্লার সাড়াশি অভিযানে তিন ডাকাতকে আটক করা হয়।

এলাকাবাসির দাবি, করোনাভাইরাসের প্রভাবে এলাকায় আতঙ্কের সুযোগে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশ ও ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার জানায়, বুধবার গভীর রাতে কুনিয়া ইউনিয়নের ভরুয়াপাড়া গ্রামের রংমিস্ত্রী ইসমাইল হাওলাদারের ঘরের দরজা ভেঙ্গে একদল সঙ্গবদ্ধ ডাকাত দল প্রবেশ করে। পরে অস্ত্রের মুখে সবাইকে জিম্মি করে নগদ অর্থ, স্বণালঙ্কার, মোবাইল সেটসহ মূল্যবান জিনিসপত্র লুট করে নিয়ে যায়। এই ঘটনায় মাদারীপুর পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বদরুল আলম মোল্লা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। পরে ইসমাইল হাওলাদারের তথ্য মতে, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বদরুল আলম মোল্লার সাড়াশি অভিযানে একজনকে আটক করা হয়। পরে তার দেয়া কথানুসারে আরো দুই জনকে আটক করে।
আটককৃতরা হলেন, মস্তফার্পু ইউনিয়নের চতুরপাড়া গ্রামের কাদের খানের ছেলে ইউসুব খান, নয়াকান্দি বাজিতপুর এলাকার সেকেন বেপারীর ছেলে বাচ্চু বেপারী ও একই এলাকার খাদেম বয়াতীর ছেলে জাকির হোসেন বয়াতী। এদের বিরুদ্ধে ইসমাইল হাওলাদার বাদি হয়ে মাদারীপুর সদর থানায় ডাকাতি মামলা দায়ের করেন। পরে বৃহস্পতিবার তাদের মাদারীপুর আদালতে প্রেরণ করেছে।

এ ব্যাপারে মাদারীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বদরুল আলম মোল্লা জানান, ‘বাদির তথ্যানুসারে তিনজনকে আটক করা হয়েছে। তাদের বিষয়ে আদালতে রিমান্ড চাওয়া হবে। যদি রিমান্ডে নেয়া যায়, তাহলে ক্ষয়ে যাওয়া মালামাল উদ্ধার করা যাবে।’

0 0 vote
Article Rating
আরও পড়ুন
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x